অমীমাংসিত প্রতিচ্ছবি  – সাহান ইরসাদ
কবিতা

অমীমাংসিত প্রতিচ্ছবি – সাহান ইরসাদ

অমানবিক কীর্তি,  ষোল কলাই পূর্ণ হবে- যদি থাকে আপন বৃত্তি। রন্ধ্রে আছে তলোয়াড়, বাহুতে নিদারুণ শক্তি, ভয় হয় তবু মনে সহে না, ভ্রাম্যমান ব্যর্থতার স্মৃতি। মূল্যবান মুহূর্তেই প্রার্থনা থাকবে তার চিরকালীন জ্যোতি সাফল্যের তাই প্রতিশব্দ অমীমাংসিত প্রতিচ্ছবি।  

পরিশ্রান্তি – সাহান ইরসাদ
কবিতা

পরিশ্রান্তি – সাহান ইরসাদ

ব্যর্থ পথিকের শূণ্য দৃষ্টি। বাস্তবতা নামক শিকারীর তীর-এর ফলা, যখন হৃদপিণ্ডছেদী হয়ে যায়- একটু একটু করে। বিপদের বন্ধু তখন একমাত্র নষ্ট হয়ে যাওয়া রক্ত। যৌবনের দৃপ্ত পরিকল্পনাগুলো বিদায় নেবার জন্য, শুধু উঠি উঠি করছে। তাদেরকে খাঁচায় বন্দী করবার মত- মনের মোমবাতির নীল শিখা –  আজ নিভু নিভু করছে। শুদ্ধ মানসিকতা আজ ‘ও’ নেগেটিভ রক্ত, স্বপ্নগুলো…

কবিতা – তুমি ; লেখিকা – জেনি
কবিতা

কবিতা – তুমি ; লেখিকা – জেনি

তুমি! তুমি সেই শুভ্র স্নিগ্ধ বায়ু। যার ছোঁয়ায় ঘুচে গেছে গ্লানির দহন। আমার বিনিদ্র নিকষ কালো রাতে, তুমি এসেছিলে আমার হয়ে, একাকি নির্জন।  তুমি! তুমি সেই পথ। যাতে আমার শত সহস্র বারের উপস্থিতিও যেনো সেই প্রথম দিনের মতোই নতুন। আমার যে পথের রেখা গেছে ক্ষয়ে, সেথায় এসেছিলে তুমি আমার হয়ে, সে ক্ষত করেছো পূরণ। তুমি!…

কবিতা- মা ; লেখিকা- জেনি
কবিতা

কবিতা- মা ; লেখিকা- জেনি

ভালোবাসি! তোমার মুখের ওই হাসি,যখন আমিই তার কারণ, ভালোবাসি মধ্যরাতে আমার ঘরে তোমার পদচারণ। ভালোবাসি চুপটি করে শুনে যাওয়া সকল অভিযোগ, চকচকে সেই চোখের সাথেও থাকে মিশে স্নেহময়ীর যোগ। ভালোবাসি ওই কষ্টের মাঝে ফুটিয়ে তোলা হাসি, অস্থিরতার মাঝেও দাও বুঝিয়ে, তবুও তোকে বড্ড ভালোবাসি। ভালোবাসি ঘুমের মাঝে তোমার আবেগ ছায়া, ভালোবাসি খুব সকালে তোমার আলতো…

নি র ব তা র    প্র লা প  – জুলকারিয়াম শুভ
কবিতা

নি র ব তা র প্র লা প – জুলকারিয়াম শুভ

সহসা জাগিনু আমি এক সহস্র প্রহর,  সব নারী দেহ অসার হয়, শুক্রাণু মরে, কাটে রাত্র।  হেরিয়া ফিরি তব ভবন দ্বার, দু-পুয়সা যদি হয় ভিক্ষে,  এক মুঠো চাল দিও, পথের সারথি, কাক যাবে তীর্থে।  নোংরা বলে বাঁধা দিওনা তারে, যায় সে স্রষ্টার খোঁজে,  প্রভু বলেছেন, “যা কিছু রয় তব সকলি মম সৃষ্ট.!” তবে নোংরা চেনো তুমি…

তুমি  – জুলকারিয়াম শুভ
কবিতা

তুমি – জুলকারিয়াম শুভ

যখন তুমি জাহাজী,  দেশান্তরী রঙ ছড়িয়ে দিও পালে,  নোঙর ফেলো মেঘের আওয়াজে।  যখন তুমি অববাহিকা,  নুয়ে পড়া জবা গাছ সারাক্ষণ চেয়ে থাকে তোমার পানে,  ঢেউ নয়, মনে করে একটু জল দিও তারে।  যখন তুমি প্রেমিকা,  ডাকপিয়ন আসে প্রত্যেকবারই, লজ্জা কম তার  শ্রাবণের চিঠিগুলো নৌকা হয়, ঘাটে ফিরে কি আর..?

পূর্ণতা – শাহিনুর রহমান
কবিতা

পূর্ণতা – শাহিনুর রহমান

আমি বরং কৃষ্ণপক্ষীয় রজনীর চন্দ্র হবো, ক্ষয়ে ক্ষয়ে নিঃশেষ হবো তোমাতে! আকাশে নক্ষত্রের হিসাব মেলাতে মেলাতে,  মিলিয়ে যাবো কোনো এক অখ্যাত নক্ষত্রের সাথে। ভালবাসার ভাগশেষ বলে যদি কিছু থেকে থাকে, তবে আমি সেই জনমে তোমাকেই চেয়ে নিবো বিশ্বস্রষ্টা বিধাতার কাছে। নিত্যাকার হিসাব চুকিয়ে নিচ্ছে সময়। আর নিষ্প্রভ অভিমানে কেটে যাচ্ছে এবেলা ওবেলা। মানছি, শাশ্বত প্রেম…

দ্যা সিন ফ্রম এ লাভার’স হার্ট – শ্রী অভীক চন্দ্র তালুকদার
কবিতা

দ্যা সিন ফ্রম এ লাভার’স হার্ট – শ্রী অভীক চন্দ্র তালুকদার

শেভলন,হ্যান্ডসেনিটাইজার,আর সাবান কিনা স্টক করলাম, সারাদিন তোমার গন্দ গন্দ হৃদয়টা স্ক্রাব দিয়া ডইল্যা ডইল্যা ধুইলাম, ফেনা তুল্লাম, বিশ সেকেন্ড ধইরা- আবার বিশ সেকেন্ড ধইরা- কচলাইতেই থাকলাম, কচলাইতেই থাকলাম, এইরম চলতেই থাকলো!  কই গন্দ তো গেলো না?  খালি পঁচা বাশি মাংশ মাংশ উইঠ্যা আইলো, আমি কিছুই বুঝলাম না!  তুমি কি এর আগে তুমার হৃদয়টা ধুইছিলা কখনো?…

পিলু – অনিন্দ্য বিশ্বাস
কবিতা

পিলু – অনিন্দ্য বিশ্বাস

আমার মন খারাপ। কথাটি অনুক্ত হয়ে আছে গত এক বছর। কৌতুহলী দৃষ্টি প্রহর ডোবার পালা দেখে। দেখে বিরহী পাখিদের বাড়ি ফেরার ব্যস্ততা। সত্তার অনুপস্থিতি বিতৃষ্ণ মনকে করে তোলে অসহায়। কৃষ্ণচূড়ার পাপড়িতে পাপড়িতে বিষণ্ণতা ঠিকরে পড়ে। তবু বলা হয় না; বলা হয় না যে আজ আমার মন খারাপ। অভ্যাসে অভ্যাসে আকাশ বিলিয়ে দেওয়া, কিংবা একফোঁটা বৃষ্টির…

দেবী – বিনিয়ামীন পিয়াস
কবিতা

দেবী – বিনিয়ামীন পিয়াস

ওগো প্রেয়সী, স্বর্গের দ্বার বেয়ে নেমে আসা অপ্সরা, মর্ত্যের বুকে ভালোবাসার বার্তাবাহিকা, তুমি কি জানোনা তুমি কতটা জীবন্ত? তুমি কতটা উষ্ণ? কতটা পবিত্র,কতটা কোমল! তোমার চোখে আমি সমুদ্রের বিশালতা দেখি, তোমার শীতল চাহনিতে দেখি নিবিড় ভালোবাসা, তোমার কন্ঠে শুনি বসন্তের আগমনী বার্তা, তোমার নিঃশ্বাস-প্রশ্বাসের প্রতিটা শব্দ আমার হৃদয়ে প্রলয় ঘটায়। তোমার স্পর্শে আমি অমরত্ব লাভ…